সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা ও গুণাবলি কি কি?

সুপ্রিয় পাঠক সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা কেমন হতে পারে সে সকল বিষয়ে অনেকেই জানার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। আমরা আজকের এই আর্টিকেলে সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা ও সাংবাদিকতা কি এ সকল বিষয়ে সম্পূর্ণ তথ্য আপনাদের সামনে তুলে ধরার চেষ্টা করব।

আশা করছি আজকের এই আর্টিকেলটি সম্পূর্ণ মনোযোগ সহকারে পুরোপুরি পড়লে সাংবাদিকতা বিষয়ক সকল তথ্য আপনারা পেয়ে যাবেন।

সাংবাদিকতার খুবই সম্মানজনক একটি পেশা। সাংবাদিক হওয়ার নানান দিকসমূহ রয়েছে সে সকল বিষয়গুলো আপনারা জানতে পারলে অবশ্যই আপনারা ক্যারিয়ার হিসেবে সাংবাদিকতাকে বেছে নিতে পারবেন।

যদিও একজন ভাল মানের সাংবাদিক হতে হলে অনেক পড়ালেখা করতে হয়। তবুও প্রশিক্ষণের ক্ষেত্রে ন্যূনতম এইচএসসি পাস হলেই প্রশিক্ষণ গ্রহণ করা যায়।

একজন সাংবাদিকের বিভিন্ন বিষয়ে পারদর্শী হতে হয় এটাই স্বাভাবিক।

আমাদের দেশে যে সকল পত্রিকা টেলিভিশন এবং অনলাইন নিউজপোর্টালগুলো রয়েছে সেখানে অভিজ্ঞ এবং প্রশিক্ষিত সাংবাদিক নিয়োগ করা হয়ে থাকে।

সাংবাদিকরা মূলত আলাদা আলাদা ক্যাটাগরিতে সাংবাদিকতা করে থাকে।

তাই যদি আপনিও চান তাহলে আপনিও যেকোনো একটি ক্যাটাগরি বেছে নিতে পারেন এবং সেই ক্যাটাগরিতে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হতে পারেন।

সেইসাথে যখন আপনি অভিজ্ঞ হয়ে যাবেন তখন আপনি একাধিক বিষয়সমূহ  নিয়ে কাজ করতে পারবেন।

উদাহরণস্বরূপ আমরা বলতে পারি যে, একজন সাংবাদিক শুধুমাত্র অপরাধবিষয়ক ঘটনাবলী নিয়ে প্রতিবেদন তৈরি করতে পারেন।

আবার অন্যদিকে তিনি চাইলে অপরাধের সাথে বিনোদন, খেলাধুলা কিংবা রাজনীতি নিয়ে প্রতিবেদন তৈরি করতে পারেন।

তবে আপনি যে বিষয়ে প্রতিবেদন তৈরি করুন না কেন আপনাকে সে বিষয়ে ইউনিক কিছু লিখতে হবে। তাহলে আপনার অগ্রগতি খুবই দ্রুত হতে থাকবে।

সাংবাদিকতা কি | সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা

সাংবাদিকতা কি
সাংবাদিকতা কি?

যে কোন তথ্য সংগ্রহ যাচাই বাছাই এবং সংগৃহীত তথ্য প্রতিবেদনের মাধ্যমে  জনসম্মুখে তুলে ধরা হলো সাংবাদিকতা।

মূলত একজন সাংবাদিক তার তৈরিকৃত প্রতিবেদন এনটিভি এবং অনলাইনের মাধ্যমে মানুষের সামনে প্রকাশ করে থাকেন।

যারা সাংবাদিক তারা দেশে-বিদেশে ঘটে যাওয়া যেকোন বিষয়ের ওপর লেখালেখি করতে পারেন।

মূলত নির্দিষ্ট ক্যাটাগরির রয়েছে যার উপর ভিত্তি করে একজন সাংবাদিকের ক্যারিয়ার গড়ে ওঠে। উদাহরণস্বরূপ-

  • নাগরিক সাংবাদিক
  • সাংস্কৃতিক সাংবাদিক
  • অনুসন্ধানি সাংবাদিক
  • কৃষি সাংবাদিক
  • সোশ্যাল মিডিয়া সাংবাদিক
  • ক্রীড়া সাংবাদিক
  • বিনোদন সাংবাদিক
  • অপরাধ বিষয়ক সাংবাদিক

তবে এক্ষেত্রে আপনি যে প্রকৃতির লেখকই হোন না কেন মনে রাখতে হবে সাংবাদিকতা একটি জটিল প্রক্রিয়া।

কেননা আপনি যদি একটি প্রতিবেদন কিংবা কোন বিষয়ে মানুষের সামনে তুলে ধরতে চান তাহলে সেই বিষয়ে সম্পূর্ণ তথ্য এবং এর সত্যতা বিচার করেই মানুষের সামনে তুলে ধরতে হবে।

সাংবাদিকতা এমন একটি পেশা যাকে সমাজের দর্পণ বা আয়না হিসেবে তুলনা করা যায়।

কারণ একজন সাংবাদিকের লিখিত প্রতিবেদনের মাধ্যমে সমাজের হাসিখুশি, দুঃখ-দুর্দশা, ভালো দিক এবং মন্দ দিক উঠে আসে।

এছাড়াও সাংবাদিকরা বিভিন্ন নতুন নতুন বিষয় মানুষের সামনে আপডেট তুলে ধরেন।  যেমনঃ সেগুলো হতে পারে চিকিৎসা বিষয়ক, তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক  ইত্যাদি নানান বিষয়ক প্রতিবেদন।

আরও পড়ুনঃ

বাংলাদেশের এয়ারফোর্স ট্রেনিং সেন্টার কোথায়?

এয়ারটেল মিনিট চেক করার কোড

বিলিরুবিন তৈরি হয় কোথায়?

সাংবাদিক হওয়ার উপায়

সাংবাদিক হওয়ার উপায়
সাংবাদিক হওয়ার উপায়

সাংবাদিকতায় খুবই কঠিন একটি কাজ। 

তাই একজন অভিজ্ঞ এবং সকল সাংবাদিক হতে হলে আপনাকে হতে হবে সৎ, সাহসী এবং নির্ভীক। তার সাথে আপনার থাকতে হবে কলমের জোর।

অর্থাৎ, আপনি কতটুকু সৃজনশীল বা কোন বিষয় সম্পর্কে কতটুকু খুঁটিনাটি বের করতে পেরেছেন এসব কেই বোঝায়।

চলুন তাহলে একজন সকল সাংবাদিক হতে হলে কোন কোন গুণাবলী গুলো থাকতে হবে সেগুলো পর্যালোচনা করা যাক।

সাহস

সাংবাদিকতা পেশার জন্য সর্বপ্রথম আপনার যা প্রয়োজন তা হলো আপনার সৎসাহস। আপনি যদি একজন ক্রাইম রিপোর্টার হন তাহলে তথ্য সংগ্রহের জন্য আপনাকে অনেক প্রতিকূল পরিস্থিতির মধ্যে পড়তে হবে।

কখনো কখনো সরেজমিন তথ্য সংগ্রহ করার প্রয়োজন হতে পারে। আরে সকল ক্ষেত্রে আপনারা অপরাধীদের আক্রোশের শিকার হতে পারেন। 

কিন্তু সত্যকে তুলে ধরতে হলে আপনাকে সব ধরনের প্রতিকূল পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে হবে।

এছাড়াও আপনি সত্য তুলে ধরার জন্য বিভিন্ন মহল হতে ক্রমাগত আপনাকে হুমকি দিতে পারে।  এসময় আপনার প্রাণনাশের হুমকি আসতে পারে।

তবে একজন সফল সাংবাদিক হওয়ার জন্য আপনার মধ্যে সৎ সাহস থাকতে হবে। এসব বিষয়ে আপনি ভয় না  পেয়ে আপনাকে সামনে এগিয়ে যেতে হবে।

তাই আপনার ভেতরে যদি নির্ভীক এবং সৎসাহস কাজ করে তবে আপনি একজন সফল সাংবাদিক হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে পারবেন।

লেখনি শক্তি

লেখনি শক্তি কাকে বলে এবিষয়টি উপরে আমরা আপনাদেরকে অবগত করেছি। আপনি যদি কোনো গণমাধ্যমে কাজ করতে চান তাহলে প্রতিনিয়ত দই বা প্রতিদিনই আপনাকে নতুন নতুন প্রতিবেদন তৈরি করতে হবে।

আপনার ভিতরে যদি লেখনি শক্তি না থাকে তাহলে প্রতিদিনই নতুন নতুন বিষয়ের উপর আপনি লিখতে পারবেন না।

তাই বিভিন্ন ধরনের লেখা জনসমক্ষে তুলে ধরার জন্য আপনার ভিতর সৃজনী লেখনি শক্তি থাকা আবশ্যক।

আপনি যদি সাংবাদিকতা করতে চান তাহলে পূর্ব অভিজ্ঞতার জন্য আপনি ব্লগিং ফ্রীল্যান্স লেখক কনটেন্ট রাইটার হিসেবে কাজ করার মাধ্যমে অভিজ্ঞতা লাভ করতে পারেন।

মানুষের মনোযোগ আকর্ষণ করে এমন সকল বিষয় সম্পর্কে আপনাকে লিখতে হবে যাতে করে মানুষ আপনার লিখিত বিষয়টি পছন্দ করে।

এতে করে আপনি আপনার সিভিতে নতুন একটি মাত্রা যুক্ত করতে পারবেন। সম্ভাব্য ভাবে এ সকল বিষয়গুলো আপনাকে একটি ভালো চাকরি এবং সাংবাদিকতা ক্যারিয়ারের পথে সাহায্য করবে।

আরও পড়ুনঃ

Robi IMO Pack Code

পদ্মা সেতুর স্প্যান কয়টি? সেতুর স্প্যান কি?

পদ্মা সেতুর পিলার কয়টি?

উপস্থাপনা

আপনি যে শুধু কেবলমাত্র প্রিন্ট মিডিয়ায় সাংবাদিকতা করবেন এমন কিন্তু নয়, আপনি চাইলে টেলিভিশন চ্যানেলেও কাজ করতে পারবেন।

আপনাকে যদি টেলিভিশনে কাজ করতে হয় তাহলে আপনাকে ক্যামেরার সামনে আসতে হবে। 

আর ক্যামেরার সামনে আসতে হলে আপনার কথা বলার ভঙ্গি, শারীরিক ভাষা এবং শব্দ চয়ন অত্যন্ত পরিপাটি এবং সুন্দর হতে হবে।

ক্যামেরার সামনে আপনি নিজেকে যতটা সুন্দর ভাবে উপস্থাপন করতে পারবেন ঠিক আপনার প্রতিবেদনটিও ততটাই সুন্দর এবং সৃজনশীল হবে।

ফলে আপনার কাজের মান এবং আপনার প্রতিবেদন দর্শকের কাছে গ্রহণযোগ্যতা বৃদ্ধি পাবে।

টেলিভিশনে কাজ করার জন্য উপস্থাপনা অত্যন্ত জরুরি একটি বিষয়। আপনাকে সচেতন এবং পরিপাটি হতে হবে। এজন্য আপনি চাইলে আগে থেকেই কোন ট্রেনিং সেন্টার থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে রাখতে পারেন।

যোগাযোগ এবং সম্পর্ক

সাংবাদিকতা পেশায় প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ এবং বিভিন্ন ব্যক্তি পর্যায়ের ইন্টারভিউ গ্রহণের জন্য তাদের সাথে সুন্দর সম্পর্ক এবং যোগাযোগ থাকতে হবে।

মনে করুন আপনি কোন প্রশাসনিক বিষয়ে প্রতিবেদন তৈরি করতে চাচ্ছেন।

সে বিষয়ে আপনার প্রতিবেদন তৈরি করার জন্য বিভিন্ন কর্মকর্তা থেকে শুরু করে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তা দের সাথে যোগাযোগের প্রয়োজন হতে পারে।

সে ক্ষেত্রে আপনার যোগাযোগ এবং সম্পর্ক থাকতে হবে পরিপূর্ণ।

নেটওয়ার্কিং

সম্পাদক, সংবাদ প্রতিবেদক এবং সংশ্লিষ্ট ক্ষেত্রে অন্যান্য সাংবাদিকদের সাথে সংযোগ স্থাপন করতে হবে।

কেননা একজন পেশাদার সাংবাদিক হওয়ার পথে আপনার অনেক কাজে তাদের পূর্ব অভিজ্ঞতা এবং পরামর্শ দিয়ে আপনাকে সাহায্য করতে পারে।

আপনার নেটওয়ার্ক যত বড় হবে রেফারেন্স হিসেবে আপনার নামটি তত বেশি মনে পড়বে। 

আপনাকে একজন সফল সাংবাদিক হিসেবে কাজ করার জন্য নেটওয়ার্কিং বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

আরও পড়ুনঃ

হালদা ভ্যালি কোথায় অবস্থিত?

সাজেক ভ্যালি কোথায় অবস্থিত?

বিদেশগামীদের করোনা টেস্ট কোথায় করা হয়?

শিক্ষাগত দিক থেকে সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা

শিক্ষাগত দিক থেকে সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা
শিক্ষাগত দিক থেকে সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা

যদিও বর্তমানে সাংবাদিকতা পেশার জন্য শিক্ষাগত যোগ্যতা বাঁধাধরা কোন নিয়ম হয়নি।

তবুও একজন সাংবাদিক হওয়ার জন্য নূন্যতম এইচএসসি পাস করা বাধ্যতামূলক বলে মনে করা হয়।

দেশের নামি দামি ও জনপ্রিয় গণমাধ্যমগুলো স্নাতক (অনার্স) বা স্নাতকোত্তর (মাস্টার্স) চায়। 

কিছু কিছু ভালো মানের অনলাইন পোর্টালে অনার্স পড়ুয়াদের ও অগ্রাধিকার প্রদান করা হয়।

তবে আপনি যদি উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় করতেন না হয়ে থাকেন তাহলে শুধুমাত্র সাংবাদিকতার উপরে দুই বছরের বিশেষায়িত কোর্স গ্রহণ করতে পারেন।

বর্তমানে দেশের অনেক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সাংবাদিকতার ওপর ডিগ্রি দিয়ে থাকে। পাশাপাশি যদি আপনার মনে হয় তাহলে আপনি প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ (পিআইবি) থেকেও একটি কোর্স গ্রহণ করতে পারেন।

পিবিআই থেকে সাংবাদিকতায় স্নাতকোত্তর ডিপ্লোমা কোর্সে ভর্তি হতে হলে আপনাকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অথবা স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় হতে নূন্যতম স্নাতক ডিগ্রি এবং এসএসসি থেকে স্নাতক পর্যন্ত যেকোনো দুইটি পরীক্ষায় কমপক্ষে দ্বিতীয় শ্রেণী  বা  জিপিএ-৩ গ্রেড পেয়ে পাশ করতে হবে।

কোথায় করবেন সাংবাদিকতা

আপনারা অনেকেই সাংবাদিকতা করতে খুবই আগ্রহী। কিন্তু কোথায় কিভাবে সাংবাদিকতা শুরু করবেন এ বিষয়টি নিয়ে অনেকে দ্বিধাদ্বন্দ্বে রয়েছেন।

আসলে প্রত্যেকেরই বর্তমান সময়ে কিছু না কিছু করার আকাঙ্ক্ষা রয়েছে। সাংবাদিকতা যদি আপনি পেশা হিসেবে বেছে নিতে চান তাহলে সর্বপ্রথম কাজ হল আপনার নিজস্ব একটি নিউজ সাইট অনলাইনে চালু করতে পারেন।

এর মাধ্যমে আপনার নিত্য নতুন লেখার অভিজ্ঞতা হবে। পাশাপাশি আপনি অনলাইন থেকে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

এই সাইটগুলো চালানের মাধ্যমে আপনি পরিচিতি পেয়ে গেলে নিউজ চ্যানেলগুলো আপনাকে তাদের চ্যানেলে কাজ করবার জন্য প্রপোজাল পাঠাবে।

আরও পড়ুনঃ

বাংলাদেশের স্যাটেলাইট এখন কোথায়?

বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ কোথায় অবস্থিত?

বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা কি?

সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা FAQS

সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা কি কি?

আপনি যদি নিজেকে একজন সাংবাদিক হিসেবে সমাজে প্রতিষ্ঠা করতে চান তাহলে আপনাকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অথবা যে কোন স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অনার্স পাস করতে হবে। এবং এসএসসি থেকে অনার্স পর্যন্ত যেকোনো দুটি পরীক্ষায় দ্বিতীয় শ্রেণি বা জিপিএ-৩ থাকতে হবে।

সাংবাদিকতা পেশাটি কেমন?

সাংবাদিকতা পেশাটি খুবই চ্যালেঞ্জিং একটি পেশা। এ পেশায় নানান ধরনের বিপদ আসতে পারে তা আপনাকে মোকাবেলা করতে হবে।

একজন সাংবাদিক হিসেবে কি কি গুণাবলী থাকতে হবে?

আপনি একজন সাংবাদিক হিসেবে আপনার অনেকগুলো গুণাবলী থাকতে হবে। তার মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ গুণাবলী হল আপনার সৎসাহস। আপনাকে সাংবাদিক হতে হলে অবশ্যই সাহসী হতে হবে।

উপসংহার

সুপ্রিয় পাঠক সাংবাদিকতা একটি চ্যালেঞ্জিং পেশা। এ পেশায় কাজ করবার জন্য অনেক বিপদ এবং নানান ধরনের প্রতিকূল পরিবেশের সৃষ্টি হয়।

আপনার সাংবাদিকতা করার জন্য যা যা প্রয়োজন তা আমরা  ইতিমধ্যে আপনাদের কে জানিয়েছি।

আশা করি আজকের এই পোস্ট টি মনোযোগ সহকারে পড়ার মাধ্যমে আপনারা সাংবাদিক হওয়ার যোগ্যতা সম্পর্কে জানতে পেরেছেন।

তবুও যদি আপনাদের এই আর্টিকেল সম্পর্কিত কোন ধরনের প্রশ্ন কিংবা মতামত থাকে তাহলে অবশ্যই আমাদের কমেন্টের মাধ্যমে জানাবেন।

আপনি যদি অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করতে চান এবং নিত্য নতুন বিষয় জানতে চান তাহলে আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করুন। 

সেইসাথে ফলো করুন আমাদের ফেসবুক পেজটি।   

Leave a Comment

1 × four =