বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত?

বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত? আপনারা জানেন কি। প্রিয় পাঠকগণ আজকে এই আর্টিকেলের মাধ্যমে আমরা বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত সে সকল বিষয়ে জানব। আমাদের মধ্যে অনেকেই রয়েছেন যারা আজকে সর্বপ্রথম বঙ্গবন্ধু দ্বীপ  নামটি শুনেছেন।

আমাদের দেশেই বঙ্গবন্ধু দ্বীপ নামে একটি দ্বীপ রয়েছে। প্রিয় পাঠকগণ আজকে আমরা সেই দ্বীপটি সম্পর্কেই বিস্তারিত আলোচনা করতে যাচ্ছি। 

আপনাদের প্রশ্ন বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত, বঙ্গবন্ধু দ্বীপের উৎপত্তি ইত্যাদি সকল বিষয় নিয়ে গঠিত হবে আজকের এই আর্টিকেলটি। আশা করছি আজকের এই আর্টিকেলটি  আপনাদের ভালো লাগবে।

বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত

বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত
বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোন জেলায় অবস্থিত

বাংলাদেশের বাগেরহাট জেলার খুলনা বিভাগে মংলা উপজেলার দুবলার চর থেকে ১০ কিলোমিটার দক্ষিনে বঙ্গোপসাগরে বঙ্গবন্ধু দ্বীপ অবস্থিত। বঙ্গবন্ধু দ্বীপের আপর নাম হচ্ছে প্রোটনের দ্বীপ।

অর্থাৎ আপনি বলতে পারেন প্রোটনের দ্বীপ নামেও পরিচিত বঙ্গবন্ধু দ্বীপ টি। এ দ্বীপটি বর্তমান সময়ে পর্যটন আকর্ষণীয় একটি স্থান।

বাংলাদেশ অনেক সুন্দর সুন্দর পর্যটন স্পট রয়েছে তার মধ্যে বর্তমানে নতুন করে বঙ্গবন্ধু দ্বীপ যোগ হয়েছে।

এ দ্বীপটি খুবই সুন্দর এবং মনোরম পরিবেশে ঘেরা একটি পাক্রিতিক সৌন্দর্যের একটি লিলা ভূমি।

আরও পড়ুনঃ

পদ্মা সেতুর পিলার কয়টি?

হালদা ভ্যালি কোথায় অবস্থিত?

বঙ্গবন্ধু দ্বীপের কোথায় বিবরণ এবং নামকরণ

বঙ্গবন্ধু দ্বীপ টি সুন্দরবনের সাতক্ষীরা রেঞ্জে পড়েছে। মূলত সুন্দরবনের হিরণ পয়েন্ট থেকে ১৫ কিলোমিটার এবং দুই বছর থেকে ২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে বঙ্গোপসাগরের ঠিক বুকে দ্বীপটি অবস্থিত।

বর্তমানে বাংলাদেশে দ্বীপের নাম বঙ্গবন্ধু চর বা বঙ্গবন্ধু আইল্যান্ড নামেও পরিচিত।

সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে প্রায় ২ মিটার উচ্চতায় অবস্থিত এই নতুন দ্বীপ টি প্রকৃতির সৌন্দর্যের অন্য একটি উদাহরণ।

১৯৯২ সালে বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরতে গিয়ে শেখ মুজিবুর রহমানের একনিষ্ঠ ভক্ত মালেক ফরাজী নামের এক মৎস্য শিকারী সর্বপ্রথম নতুন জেগে উঠা চরের দেখা পেয়েছিলেন।

তারপর তিনি জনমানবহীন এই দ্বীপের নাম দেন “বঙ্গবন্ধু দ্বীপ” এবং সে দ্বীপে সাইনবোর্ড লাগিয়ে দিয়ে আসেন।

বঙ্গবন্ধু দ্বীপের ইতিহাস

১৯৭৬ সালে স্যাটেলাইট ইমেজে বঙ্গবন্ধু দ্বীপটির অস্তিত্ব পাওয়া যায়। এ দ্বীপটি বছরের কয়েক মাস ভেসে ওঠে আবার কিছু কিছু সময় ডুবে যায়।

পরবর্তীতে ২০০৪ সালের পর থেকে দ্বীপের আকার স্থিতিশীল হয়ে যায়। এর পর থেকে এটি আর না ডুবে ধীরে ধীরে বড় হতে থাকে বঙ্গবন্ধু দ্বীপ টি।

২০১৭ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক বঙ্গবন্ধু দ্বীপটিতে যায়। এবং সেখানে টানা তিনদিন অবস্থান করে দ্বীপটির অভ্যন্তরীণ মৃত্তিকা, ডিসিপি জরিপ ও ভিজিবিলিটি অ্যানালাইসিসসহ অনেক ধরনের বৈজ্ঞানিক  অনুসন্ধান চালায়। সেখানে তারা নানান ধরনের তথ্য পায়।

বঙ্গবন্ধু দ্বীপের ভৌগোলিক আয়তন ও ভূপ্রকৃতি

বঙ্গবন্ধু দ্বীপটি শুরুতে মাএ ২ একর আয়তন থাকলেও, বর্তমান সময়ে এই দ্বীপটি আয়তনে প্রায় ৭ দশমিক ৮৪ বর্গকিলোমিটার অবস্থান জুড়ে রয়েছে। এবং ৯ কিলোমিটার দীর্ঘ বালুকাভূমি আর ৫০০ মিটার প্রশস্ত সমুদ্রসৈকত। 

জাতীয় নেতার নামে বঙ্গবন্ধু দ্বীপটি সমুদ্র পৃষ্ঠ হতে প্রায় ২ মিটার উচ্চতা সম্পন্ন।

এই দ্বীপের পেছনের দিকে রয়েছে নয়নাভিরাম ছোট ছোট বালির ঢিবি বা এগুলোকে বালিয়াড়িও বলা যেতে পারে। 

দ্বীপের একদম পেছনে আছে এক দশকেরও কম সময়ে গড়ে ওঠা সবুজ-শ্যামলা বিস্তীর্ণ বনাঞ্চল ও ম্যানগ্রোভ ফরেস্ট।

বঙ্গবন্ধু দ্বীপের উদ্ভিদ ও প্রাণি বৈচিত্র

জীববৈচিত্র্যের দিক থেকে বঙ্গবন্ধু দ্বীপটির উদ্ভিদ ও প্রানীসম্ভার বেশ বৈচিত্র্যময়।

  • অসংখ্য লাল লাল কাঁকড়ার মেলা আর মনোরম ছোটাছুটি, স্বচ্ছ পানি, প্রশস্ত বালুকাভূমিসহ জীববৈচিত্র্যে সমৃদ্ধ দ্বীপটিকে আকর্ষনীয় সুন্দর করে তুলেছে।
  • প্রাথমিকভাবে এই দ্বীপটিতে চার ধরনের কাঁকড়ার প্রাজাতি চোখে পড়ে থাকে।
  • ১৬ ধরনের মোলাস্ক(শামুক-ঝিনুক ইত্যাদি) রয়েছে এই দ্বীপটির মধ্যে।
  • এছাড়াও আট প্রজাতির প্লাংকটন এবং দুই ধরনের বার্ণাকল পাওয়া গেছে।

বাংলাদেশে দেখা যায় নি এমন এক প্রজাতির এসিডিয়ানের সন্ধান মিলেছে।

এটি বাংলাদেশে এবারই প্রথম দেখা মিলেছে।

আবার স্থলজ প্রানিকুলের মধ্যে ফড়িং, প্রজাপতি, মৌমাছসহ বিভিন্ন প্রজাতির পোকা-মাকড় পাওয়া যায়।

বঙ্গবন্ধু দ্বীপে পর্যটন

বাংলাদেশের সুন্দরবন বন খুবই সুন্দর একটি পর্যটন স্পট। এর কাছাকাছিই নতুনরূপে গড়ে উঠছে এই বঙ্গবন্ধু দ্বীপ।

এই দ্বীপে পর্যটন বিকাশের বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে।

আসে পাশের সকল পর্যটন স্থানের সঙ্গে মিলিয়ে সমন্বিত উদ্যোগের সাথে মিলিয়ে এই দ্বীপটি দেশি এবং বিদেশি পর্যটকদের জন্য হয়ে উঠতে পারে আর্কষণীয় গন্তব্য।

আরও পড়ুনঃ

বিলিরুবিন তৈরি হয় কোথায়?

Robi IMO Pack Code

পদ্মা সেতুর স্প্যান কয়টি?

=> বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত FAQS

বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত?

বঙ্গবন্ধু দ্বীপ বাগেরহাট জেলার খুলনা বিভাগে অবস্থিত।

উপসংহার

সুপ্রিয় পাঠক আজকেরে আর্টিকেলে বঙ্গবন্ধু দ্বীপ কোথায় অবস্থিত এবং বঙ্গবন্ধু দ্বীপ সম্পর্কিত সকল তথ্য আপনাদের জানানো হয়েছে।

তবুও যদি এই সংক্রান্ত কোনো প্রশ্ন বা মতামত থাকে তাহলে অবশ্যই আমাদের কমেন্টের মাধ্যমে জানাবেন।

আশা করছি আপনাদের আজকের এই আর্টিকেলটি ভালো লেগেছে।

আপনারা যদি ঘরে বসেই অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করতে চান এবং শিক্ষামূলক নানান বিষয় সম্পর্কে জানতে চান তাহলে আমাদের ওয়েবসাইটে দেয়া আর্টিকেল পড়ুন।

সুতরাং আপনারা চাইলে আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারেন।

এবং আমাদের ওয়েবসাইট সম্পর্কিত সকল তথ্য জানতে আমাদের ফেসবুক পেজ টি ফলো করুন। 

Leave a Comment

5 × 2 =