ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব । ডিজিটাল মার্কেটিং বলতে কি বুঝায় 

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব এই বিষয়ে অনেকেই গুগল করে থাকেন। তাই আজকে আপনাদের জানাবো ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় সম্পর্কে। কিভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার গড়া যায় তা জানবো। ডিজিটাল মার্কেটিং করে কি আসলেই হাজার হাজার ডলার বা লাখ লাখ টাকা ইনকাম সম্ভব?  ডিজিটাল মার্কেটিং এর ভবিষ্যৎ কি? সঠিকভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স শেখার উপায় সম্পর্কে জানবো।

যতই দিন যাচ্ছে ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের চাহিদা বেড়েই ছলছে। আমি মনে করি আপনারও ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে জানা প্রয়োজন।

কেননা বর্তমানে বাংলাদেশে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে কিছু অসাধু লোক আমাদের ভুল ব্যাখ্যা দিচ্ছে এবং ভুল পথে ধাবিত করছে। তবে আমি মনে করি ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার গড়ার পূর্বে আপনাকে আমাদের এই পোস্টটি পড়া উচিৎ।

Contents hide

ডিজিটাল মার্কেটিং কি?

বর্তমানে ডিজিটাল মার্কেটিং কি এবং কিভাবে শিখতে হয় এ সম্পর্কে জানতে চাওয়া মানুষের সংখ্যা অনেক।

মার্কেটিং একটি ইংরেজী শব্দ। মার্কেটিং শব্দের বাংলা অর্থ হচ্ছে প্রচার প্রচারণা।  ডিজিটাল শব্দের অর্থ হচ্ছে ইন্টারনেটের মাধ্যমে প্রচার প্রচারণা। 

এখন আমরা সহজ ভাষায় বলে বলতে পারি ইন্টারনেটে কোনো পণ্য ও সেবা প্রচারের পদ্দতিকে আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং বলতে পারেন।  

ডিজিটাল মার্কেটিং মানে হচ্ছে অনলাইনে পন্য বা সার্ভিস সেবার বিজ্ঞাপন প্রচার করাকেই বুঝায়। এখন সেটা হতে পারে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে, হতে পারে সার্চ ইঞ্জিনের মার্কেটিং এর মাধ্যমে, হতে পারে সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশনের মাধ্যমে, আবার হতে পারে ইমেইল মার্কেটিং এর মাধ্যমে।

এছাড়াও সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এবং কন্টেন্ট মার্কেটিং ডিজিটাল মার্কেটিং এর অন্যতম একটি উপায়। 

কেননা ডিজিটালি কোন পণ্য বা সেবাকে মার্কেটিং করতে হলে আপনাকে ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম গুলোকে বেছে নিতে হবে, এই ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম এর মাধ্যমে কোন পণ্য বা সেবার প্রচার-প্রচারণা কে ডিজিটাল মার্কেটিং বলা হয়ে থাকে।

ডিজিটাল মার্কেটিং বাংলাদেশ

বর্তমান সময়ে বাংলাদেশে সঠিক গাইড লাইনের অভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্সের নামে কাড়ি কাড়ি টাকা ধংশ করা মানুষের সংখ্যাই বেশি।

আজকে আমরা ডিজিটাল টাচ.কম থেকে আপনাকে এমন একটি সম্পূর্ণ গাইডলাইন দিতে চেষ্টা করবো যেখানে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে সবকিছু জানতে পারবেন।

এমনকি ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারবেন ব্যেসিক থেকে হায়ার লেভেল সবকিছুই।

আজকের পোস্টটি পড়ে আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে সম্পূর্ণ ধারণা নিতে পারবেন। ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার বিষয়ে আমাদের এর আগে একটি পোস্ট আছে। এই পোস্ট শেষে সেই পোস্টের লিঙ্ক আপনাদেরকে দিয়ে দিবো।

যাদের ডিজিটাল মার্কেটিং বিষয়ে খুবই কম ধারণা বা মোটামুটি ধারণা আছে আজকের পোস্টটি তাদের জন্য। চলুন শুরু করা যাক আজকের টপিক ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখবো এবং ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পূর্ণ গাইডলাইন।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর গুরুত্ব?

আমাদের মধ্যে যারা ডিজিটাল মার্কেটার হতে চায় তাদের মধ্যে প্রত্যেকের একটি কমন প্রশ্ন, ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখবো?

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার গাইডলাইন জানার পূর্বে আপনাকে জানা প্রয়োজন ডিজিটাল মার্কেটিং এর গুরুত্ব কি? কেন বা কোন প্রয়োজনে আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পাচ্ছেন। 

অন্যদিকে ইলেক্ট্রনিক মিডিয়া যেমন, রেডিও, টেলিভিশনে বিভিন্ন পণ্য বা সার্ভিসের বিজ্ঞাপন দেওয়াও ডিজিটাল মার্কেটিং এর আওতায় পরে। আবার মোবাইল ফোনে ইন্সট্যান্ট মেসেঞ্জিং, ইলেকট্রনিক বিলবোর্ড, মোবাইল এপ্লিকেশনের মাধ্যমে পণ্যের প্রচারণাকেও ডিজিটাল মার্কেটিং বলা যায়। 

এবার নিশ্চয়ই বুঝতে পারছেন, আধুনিক বিশ্বে নিজেকে এবং নিজের ব্যবসাকে টিকিয়ে রেখে ভালো স্থানে নিয়ে যেতে ডিজিটাল মার্কেটিং এর কোনো বিকল্প নেই। 

আপনি যদি সঠিকভাবে নির্ণয় করতে পারেন তবে আপনাদের বলব ডিজিটাল মার্কেটিং এর ক্ষেত্র দিনে দিনে ব্যাপক প্রসারিত হচ্ছে এবং এই ক্ষেত্রে কাজের সম্ভাবনা ব্যাপক হারে বাড়ছে।

কেননা প্রতিটি ব্যবসায়ী চাচ্ছে তার ব্যবসাকে অনলাইনে নিয়ে আসতে। অনলাইন এবং অফলাইন উভয় মিলিয়ে ব্যবসা প্রসারের লক্ষ্যে ব্যবসায়ীরা কাজ করে যাচ্ছেন।

এবং তাদের ব্যবসার প্রচার প্রচারণার জন্য একজন ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রয়োজনীয়তা রয়েছে। 

কেননা  একজন ব্যবসায়ী ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে খুব বেশি ধারণা রাখেন না তিনি ব্যবসা সম্পর্কে ধারণা রাখেন।

ডিজিটাল সেক্টরে অনেকগুলো ক্যাটাগরি রয়েছে তাই আপনার উচিত আপনার পছন্দের ক্যাটাগরিতে আজ এই কাজ শুরু করে দেওয়া।

যারা এই ফিল্ডে কাজ করেন তাদের ভাষ্য মতে ও আমার ধারনা মতে ডিজিটাল মার্কেটিং এর ভবিষ্যৎ সম্ভাবনা বা গুরুত্ব সম্পর্কে বললে বলা যায় যে অদূর ভবিষ্যতে ডিজিটাল মার্কেটিং এর ব্যাপক সম্ভাবনা রয়েছে।

ডিজিটাল মার্কেটিং কেন প্রয়োজন?

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব, ডিজিটাল মার্কেটিং বলতে কি বুঝায় 
ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব

বর্তমান সময়ে ব্যবসা করছেন অথচ ডিজিটাল মার্কেটিং করছেন না আপনার পণ্যের প্রচারে এটা বিশ্বাস করা এক প্রকার বোকামি। কারণ, বর্তমান সময়ে ডিজিটাল মার্কেটিং ব্যবসার অন্যতম প্রধান একটি অংশ। 

এর অন্যতম কারণ, মানুষ এখন যেকোনো পণ্য কেনার আগে অনলাইন থেকে খুব ভালো ভাবে ধারণা নিয়ে থাকে। কেউ বা আবার অনলাইনেই অর্ডার দিয়ে দেন তখনি। অনলাইনে অর্ডার করা মানুষের সংখ্যাও কম নয়।    

এজন্য একজন বুদ্ধিমান ব্যবসায়ীর উচিত নিজের ব্যবসার পরিচিতি এবং পণ্য সম্পর্কে মানুষকে জানাতে ডিজিটাল মার্কেটিং এর সঠিক ব্যবহার করা।

জেনে নেওয়া যাক বর্তমান সময়ে ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে।  

সর্বশেষ তথ্য মতে, সারা বিশ্বে প্রায় ২ বিলিয়ন এর বেশি মানুষ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার করছে। এবং এই ব্যবহারকারীদের সংখ্যা প্রতিনিয়ত বেড়েই চলছে। মানুষ যত বেশি ইন্টারনেট ব্যবহার বাড়াবে আপনিও ঠিক ততই আপনার ব্যবসা বা পণ্য বা সার্ভিসের মার্কেটিং বাড়াতে পারবেন।

আর এতক্ষণে বুঝতে বাকি নাই যে, ইন্টারনেটের মাধ্যমে আপনার পণ্যের ডিজিটাল মার্কেটিং করা কতক্ষানি গুরুত্বপূর্ণ। 

ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ কি

এই মুহূর্তে সারা বিশ্বে মোবাইল ব্যবহার কারীর সংখ্যা মোট ৫.১১ বিলিয়ন। আর মোবাইল ব্যবহার কারীর সংখ্যাও নিত্য দিনে বেড়েই চলেছে। অনেকে তো আবার একাধিক স্মার্ট মোবাইল ব্যবহার করেন তাদের কাজের জন্য। আর এই মোবাইলই হচ্ছে ক্রেতার তথ্য কালেকশনের অন্যতম সোর্স। 

কারণ সকল স্মার্ট ফোণ ব্যবহারকারীই ইন্টারনেটের সাথে যুক্ত। অর্থাৎ, স্মার্ট ফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা যত বাড়বে ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রয়োজনীয়তাও তত বাড়বে।

আরও জেনে অবাক হবে যে, একটা স্ট্যাটিসটিক্সের মাধ্যমে ইউজার সার্ভে রিপোর্ট থেকে জানা যায়, প্রায় ৮৪% বিক্রেতা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে ব্যবহার করে ক্রেতার তথ্য সংগ্রহ করে নিজ পণ্য প্রচার প্রসার করার জন্য। 

ডিজিটাল মার্কেটিং কেন করবেন

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব
ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব

এছাড়া আরো একটি সার্ভে থেকে দেখা যায় যে, সারা বিশ্বে ৫৫% মানুষ যেকোন পন্য ক্রয়ের জন্যে সামাজিক মাধ্যমের ওপর সম্পূর্ণ নির্ভরশীল।

এর অর্থ, এই সব ব্যক্তিরা সোশ্যাল মিডিয়া থেকে তাদের পছন্দের পণ্য সম্পর্কে তথ্য এবং রিভিউ খুব সহজে জানতে পারে।

আর ক্রেতা যার প্রেজেন্টেশন ও পণ্যকে পছন্দ করবে তার কাছ থেকে অনলাইনের মাধ্যমেই ক্রয় করে ফেলে এমন সংখ্যাই বেশি। 

অন্য একটি সার্ভেতে দেখা যায় ৪৩% ই-কমার্স ক্রেতা গুগলে সার্চ করে তাদের পছন্দের ই-কমার্স ওয়েবসাইটে আসে।এছাড়া বিশ্বে প্রায় ৫১% ক্রেতা তাদের প্রয়োজনীয় কেনাকাটা অনলাইন থেকে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে সম্পন্ন করে থাকে। এই সংখ্যাটিও দিনকে দিন অবিশ্বাস্য ভাবে বেড়েই চলেছে।

এছাড়া অন্য একটি সার্ভেতে দেখা যায় ৭০% ক্রেতা যেকোন পণ্য কেনার আগে ইন্টার্নেটে সার্চ দিয়ে সেই পণ্য সম্পর্কে যাচাই বাছাই করেন।

পণ্যটি পচ্ছন্দ হলে সাথে সাথেই ঘরে বসে  অনলাইনের মাধ্যমে অর্ডার নিশ্চিত করেন।

আরো একটি মজার ব্যাপার হচ্ছে, ৮২% ক্রেতা মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যেই বিক্রেতার সাথে তাদের লাইভ চ্যাটের মাধ্যমে কথা বলতে চান সবসময়। 

এতক্ষণে আপনি হয়ত এখন কিছুটা হলেও বুঝতে পারছেন, আপনার ক্রেতারা কিভাবে অনলাইনে তাদের কেনাকাটা নিশ্চিত করে থাকেন।

তাই আপনি যদি এই ডিজিটাল যুগে, ডিজিটাল মার্কেটে টিকে থাকতে চান, তাহলে আপনার এখনই ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে ভাবা উচিত। যা আপনাকে আপনার ব্যবসায়ে অধিক অধিক লাভবান হতে কাজ করবে নিশ্চিত। 

ডিজিটাল মার্কেটিং গাইডলাইন

মনে রাখতে হবে, আপনার প্রতিদ্বন্দ্বী কিন্তু একদমই বসে নাই। সে কিন্তু তার ব্যবসাকে ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে ক্রেতাদের কাছে পৌঁছে দেয়ার চেষ্টা করছেন সবসময়।

সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় যেটি Coca-Cola, Unilever থেকে শুরু করে দেশি এবং বিদেশি সকল বড় বড় কোম্পানীগুলোও কিন্তু বেশ তোড় জোড়ের সাথেই বর্তমানে ডিজিটাল দুনিয়াতে নিজেদের অস্তিত্ব জানান দিচ্ছে একমাত্র ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে।

এতক্ষণে ডিজিটাল মার্কেটিং কেন দরকার, আপনি কেন ডিজিটাল মার্কেটিং করবেন তা হয়তো আর বুঝতে বাকি নেই।

এরপরে আমরা জানবো ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার জন্য করণীয় ৫ টি কাজ। যা ডিজিটাল মার্কেটিং করতে হলে অবশ্যই জানতে হবে। 

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার জন্য করনীয় ৫ টি কাজ 

আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার গড়তে চাচ্ছেন? অথচ জানেন না ডিজিটাল মার্কেটিং কি? ডিজিটাল মার্কেটিং মানেই যেসব বিষয়কে বোঝায় অর্থাৎ পাঁচটি জিনিস। আমরা এখন এই পাঁচটি জিনিস নিয়ে আলোচনা করবো। 

আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে চাইলে অবশ্যই এই পাঁচটি বিষয় সম্পর্কে আপনার সম্পূর্ণভাবে ধারণা থাকতে হবে এবং কাজগুলি করতে পারতে হবে।

তা না হলে আপনি কোন সময়ই ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারবেন না, কোনো ভাবেই না। 

বিষয় পাঁচটি, যার উপর ভিত্তি করে ডিজিটাল মার্কেটিং হয়ে থাকে। 

১) সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং ( SEM & PPC) এবং সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন

২) কনটেন্ট মার্কেটিং 

৩) সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এবং এডভার্টাইজিং

৪) ইমেইল মার্কেটিং 

৫) ডিজিটাল মার্কেটিং এনালাইটিকস টুলস

এবার এই পাঁচটি বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক। আশা করি এতদুর যখন মন দিয়ে পড়ে আসছেন এবার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অংশ আর বাদ দিবেন না। এই অংশটুকুই মূলত ডিজিটাল মার্কেটিং এর মূল তথ্য। চলুন জেনে নেওয়া যাক। 

১) সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিংঃ 

ডিজিটাল মার্কেটিং এড় প্রধান উপাদান বলা হয়ে থাকে সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিংকে।  ডিজিটাল মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়।

বিভিন্ন ধরনের সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজ SEO করে এখানে সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং করা হয়ে থাকে।

সাধারনত এই ক্ষেত্রে গুগল এড বা বিং এডকে ব্যবহার করে সার্চ ইঞ্জিন এর মাধ্যমে বিজ্ঞাপন পরিচালনা করা হয়।

যারা সাধারণত ওয়েবসাইট নিয়ে কাজ করে তারা এসইও এর কদর সব থেকে ভালোই জানেন। এসইও হলো ওয়েবসাইটের কনটেন্ট বা কোন প্রোডাক্ট রিভিউ গুগলের মাধ্যমে রেঙ্ক এ নিয়ে আসা। 

এসইও এর ফলে ভিজিটর গুগলে একই বিষয়ে কিছু লিখে সার্চ দিলে যে ওয়েবসাইটের এসইও ভালো তাদের ওয়েবসাইটের পোস্ট দেখা যাবে। এজন্যই এসইও অনলাইন ডিজিটাল মার্কেটিং এর জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ।

এর মাধ্যমে খুব সহজে গুগল থেকে টার্গেট অর্গানিক ভিজিটর নিয়ে আসতে পারবেন। 

এসইও এর জন্য অন্যতম আরেকটি বিষয় কিওয়ার্ড রিসার্চ। এজন্য ডিজিটাল মার্কেটিং এর অন্যতম কাজ সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং।

কিওয়ার্ড রিসার্চ টার্গেট করার জন্য গুগল সার্চ কনসোলের ডাটা এনালাইসিস শিখতে হবে অবশ্যই। এর পরে আপনাকে পিপিসি সম্পর্কে খুব ভালোভাবে আয়ত্ত করতে হবে। 

এর সবগুলি যেমন, সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন বা অর্গানিক এসইও, যার উপর বিজনেস ওনার দের সবচেয়ে বেশি আগ্রহ থাকে।

এর সবগুলি আপনাকে অবশ্যই শিখতে হবে যদি আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে চান। 

কেননা অর্গানিক এসইও এর মাধ্যমে আপনি আপনার ওয়েবসাইটে কোন টাকা পয়সা খরচ না করে নিয়মিত টার্গেটেড ট্রাফিক নিয়ে আসতে পারেন খুব সহজে। এটিকে ডিজিটাল মার্কেটিং এর সবচেয়ে বড় ইন্ডাস্ট্রি হিসেবেও ধরা হয়।

২) কনটেন্ট মার্কেটিংঃ

কন্টেন্ট মার্কেটিং ডিজিটাল মার্কেটিং এর অন্যতম দ্বিতীয় একটি বিষয়। প্রত্যেক ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রচারের বিষয় একটি কন্টেন্ট এর উপর নির্ভর করে।

যে মাধ্যমেই আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং করুন না কেন আপনাকে অবশ্যই অবশ্যই কন্টেন্ট ক্রিয়েট করতে হবে।

লিখে অথবা ভিডিও এনিমেশন তৈরি করে পণ্য বা সেবার প্রচার করাকেই মূলত কন্টেন্ট মার্কেটিং বলা হয়ে থাকে।

একটি আর্টিকেল দিয়েই একজন ডিজিটাল মারকেতার তার পণ্য বা সেবার প্রচার প্রসার করতে পারে খুব সহজে। 

আর এজন্যই একজন কন্টেন্ট মার্কেটার হতে হলে অবশ্যই দুর্দান্ত লেখার দক্ষতা এবং SEO কপিরাইট দক্ষতা সম্পন্ন হতে হবে।

তবেই আপনি একজন ভালো মানের কন্টেন্ট মার্কেটার হতে পারবেন, যা হওয়া একদমই সহজ। 

৩.সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং 

এই মুহূর্তে সারা বিশ্বে জনপ্রিয়তার তুঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়া। এর মধ্যে অন্যতম ইউটিউব, ফেসবুক, টুইটার এবং ইন্সতাগ্রাম উল্লেখ যোগ্য। 

সারা বিশ্বকে নিয়ে প্রতিষ্ঠিত এই সোশ্যাল মিডিয়া নেটওয়ার্কগুলো আমাদের জীবনে এবং ডিজিটাল মার্কেটিং এ আমাদের দৃষ্টিভঙ্গির উপর বিশেষ প্রভাব বিস্তার করে চলেছে খুব বেশি বেগে।

যেহেতু ডিজিটাল মার্কেটিং এর লক্ষ্যই হচ্ছে অনলাইনের মাধ্যমে জনগণকে পণ্য সম্পর্কে জানানো সেহেতু সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং ডিজিটাল মার্কেটিং এর অন্যতম এবং খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি অংশ। 

৪) ইমেইল মার্কেটিং 

ডিজিটাল মার্কেটিং এর সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ উপাদান গুলোর মধ্যে ইমেইল মার্কেটিং অন্যতম একটি।

ইমেইল মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে আপনি মুহূর্তেই লাখ লাখ ইউজারের কাছে আপনি আপনার পণ্যের বিশদ সম্পর্কে জানাতে পারবেন খুব সহজে। 

বর্তমান সময়ে গ্রাহকদের আকৃষ্ট করা এবং প্রোডাক্ট সম্পর্কে সচেতন করার জন্য ইমেইল মার্কেটিং খুবই কার্যকরী একটি উপায় হিসেবে কাজ করছে।

তবে আপনাকে যদি একজন ইমেইল মার্কেটার হতে হয় তাহলে অবশ্যই এর জন্য কিছু দুর্দান্ত কৌশল নিজের মধ্যে রপ্ত করতে হবে।

আর সেগুলি যদি না জানেন  আপনার করা ইমেইল গুলো আপনার ইউজারদের স্প্যাম ফোল্ডারে গিয়ে জমা হবে যাতে আপনার কোনো লাভ হবে না।  

ইমেইল মার্কেটিং করার আগে অবশ্যই আপনাকে এই সম্পর্কিত টুলস ব্যবহারের সিদ্ধান্ত নিতে হবে এবং এগুলো কিভাবে ব্যবহার করে সেটাও খুব  ভালো করে জানতে হবে।

এই বিষয়টি যদি আপনি শিখে যান তাহলে অবশ্যই আপনি ইমেইল মার্কেটিং করতে পারবেন খুব সহজে। 

ব্লগ লিখে আয় করার উপায় | ঘরে বসে বাংলা লিখে টাকা আয় করুন! বিকাশ পেমেন্ট

৫) ডিজিটাল মার্কেটিং এনালাইটিকস টুল কি ?  

একজন ভালো মানের ডিজিটাল মার্কেটার এর অন্যতম গুণাবলি এই সম্পর্কিত সব বিষয়ের তুলস সম্পর্কে ধারণা রাখা।

অবশ্যই আপনাকে বিভিন্ন মার্কেটিংয়ের এনালাইটিক্স টুল সম্পর্কে সর্বাধিক ধারনা সম্পন্ন থাকতে হবে।

আপনাকে অবশ্যই এই বিষয়টি মাথায় রাখতে হবে যে একজন সুদক্ষ ডিজিটাল মার্কেটার এর কাজ শুধু সোশ্যাল মিডিয়া বা অন্যান্য জায়গায় প্রচার চালানো এর মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকে না। 

এতক্ষণে নিশ্চয়ই আপনি বুঝতেই পারছেন একজন পেশাদার ডিজিটাল মার্কেটারের কাজ হচ্ছে ক্রেতার অবস্থান পছন্দ ও আগ্রহ বুঝে নির্দিষ্ট পণ্যের টার্গেট ফিক্সদ করা। যা সাধারণত একমাত্র বিভিন্ন ধরনের এনালাইটিক্স টুলের মাধ্যমে করা সম্ভব। 

আর এই বিষয়টি যদি আপনার আয়ত্তে আনতে হয় তাহলে আপনাকে গুগল এনালাইটিক্স এবং গুগল সার্চ কনসোলের মতো টুলগুলো ব্যবহার শিখতে হবে খুঁটিনাটি।

যেটি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়, ROI বা রিটার্ন ওঁ ইনভেস্টমেন্ট, এটি ক্যাল্কুলেশনে আপনাকে হতে হবে খুবই দক্ষ। 

এবার দখা নেওয়া যাক ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব কোথা থেকে শিখব। ফ্রি শিখব নাকি কোর্স করবো।

গুগল থেকে নাকি ইউটিউব বেস্ট হবে? এর সব উত্তর জানতে পোস্টটি মন দিয়ে পড়তে থাকুন। 

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব । Learn how to do digital marketing

ডিজিটাল মার্কেটিং হলো সার্চ ইঞ্জিন অথবা সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফরম কে ব্যবসাইক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা। যেখানে সাধারণত এক বা একাধিক চ্যানেল ব্যবহার করে মার্কেটিং পরিসেবা প্রচার প্রসার করা হয়। 

এই মুহূর্তে আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে আপনার পণ্য স্মার্ট ক্রেতাদের কাছে তুলে ধরতে পারবেন।

আরও একবার বলে রাখা ভালো, বর্তমানে সবচেয়ে প্রচলিত এবং জনপ্রিয় ডিজিটাল মার্কেটিং এর উদাহরণ হচ্ছে সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং, কনটেন্ট মার্কেটিং, সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এবং ইমেইল মার্কেটিং।

এগুলোই হল বর্তমানে সবচেয়ে প্রচলিত এবং জনপ্রিয়তার তুঙ্গে থাকা ডিজিটাল মার্কেটিং এর অন্যতম মাধ্যম। এই সকল বিষয় গুলো আপনাকে ধাপে ধাপে শিখতে এবং ব্যবহার করতে জানতে হবে।

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার জন্য আপনাকে কোন ধরনের পেইড কোর্স বিগেনার পর্যায়ে বা প্রাথমিক অবস্থায় শিখতে হবে না।

প্রাথমিক অবস্থায় আপনি পেইড কোর্সে কাড়ি কাড়ি টাকা নষ্ট করে আসলেই কোনো লাভ করতে পারবেন না। 

নিচে বেশ কয়েকটি উপায়ে ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় উল্লেখ করছি। আপনি এই মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং এর শুরু থেকে শেষ সব শিখতে পারবেন সম্পূর্ণ ফ্রিতে এবং ঘরে বসেই।

সোশ্যাল মিডিয়া ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব ? 

সোশ্যাল মিডিয়া বর্তমান সময়ের ইন্টারনেট দুনিয়ার সব থেকে বেশি জনপ্রিয় মাধ্যম।  সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে প্রতিদিন কোটি কোটি মানুষ নানা ধরনের তথ্য আদান-প্রদান করতেছে। 

ঠিক তেমনি ভাবে আমারা চাইলে সোশ্যাল মিডিয়াকে ব্যাবহার করে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পার খুব সহজে।

ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রাম, লিঙ্কডিন সহ প্রায় সব ধরনের সোশ্যাল মিডিয়াতেই আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারবেন সম্পূর্ণ ফ্রিতে।এজন্য এই সকল সোশ্যাল মিডিয়াতে ডিজিটাল মার্কেটিং রিলেটেড পেজ এবং গ্রুপ খুজে তার সাথে নিয়মিত কানেক্ট থাকতে হবে। 

মানুষ কি কি বিষয় নিয়ে লেখালেখি করছে দেখতে আর মনোযোগ দিয়ে শিখতে হবে। কিছু না বুঝলে কমেন্টের মাধ্যমে, ইনবক্সে তাদের কাছে জিজ্ঞাসা করলেই উত্তর পেয়ে যাবেন। 

সোশ্যাল মিডিয়াতে ডিজিটাল মার্কেটিং রিলেটেড পেজ ও গ্রুপ খুজে পেতে ডিজিটাল মার্কেটিং গ্রুপ, ডিজিটাল মার্কেটিং পেজ, ডিজিটাল মার্কেটিং হেল্প, ডিজিটাল মার্কেটিং সাপোর্ট, ডিজিটাল মার্কেটিং, ডিজিটাল মার্কেটিং মাস্টারমাইন্ড  ইত্যাদি লিখে সার্চ বক্সে সার্চ করতে হবে । তারপর ফলাফলে আসা গ্রুপ পেজ এ যুক্ত হয়ে থাকতে হবে। 

অনলাইনে ব্লগ পড়ে কিভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব ? 

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার সবথেকে উত্তম পন্থা  হলো অনলাইনে ব্লগ পড়ে শেখা।

আপনাকে হয়তো এই সত্যি কথাটা কেউ কখনোই বলবেনা।

আমার কাছে কেউ ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় জানতে চাইলে প্রথম তিনবার ব্লগ পড়ে শিখতে বলব।

শুধু ডিজিটাল মার্কেটিং না। সবকিছুতেই ব্লগ পড়ে সবথেকে সহজে শেখা যায়। 

অনলাইনে বেশিরভাগ ব্লগ ইংরেজিতে থাকায় অনেকে ইংরেজি ব্লগ পড়ে অর্থ বুঝতে পারে না।

তাই আপনি যদি ভালো ইংরেজি জানেন তাহলে খুব সহজেই অনলাইন থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারবেন।

ওয়ার্ল্ডে অনেক বড় বড় ডিজিটাল মার্কেটার রয়েছে- যারা ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে তাদের ওয়েবসাইটে লেখালেখি করে আসছে প্রতিনিয়ত।

ডিজিটাল মার্কেটিং প্রতিনিয়ত পরিবর্তনশীল একটি বিষয় বলা যায়।

সবথেকে মজার ব্যাপার হল আপনি ওয়ার্ল্ডের এই সকল মার্কেটারদের অনুসরন করলে সবসময় ডিজিটাল মার্কেটিং এর সকল পরিবর্তন সম্পর্কে অন্য সবার আগে অবগত থাকতে পারবেন।

কারণ তারা প্রতিনিয়ত বিভিন্ন আপডেট নিয়ে তাদের ব্লগে অনেক বড় বড় আর্টিকেল লিখে থাকেন। 

এছাড়া বর্তমানে বাংলা ব্লগের ক্ষেত্রে আসতে আসতে প্রচার প্রসার লক্ষ্য করা যাচ্ছে।

বাংলাতে ক্রমান্বয়ে ব্লগের সংখ্যা বেড়েই চলছে।

তবে বাংলা ব্লগের মান আপনাকেই যাচাই বাচাই করে নিতে হতে পারে। 

ইউটিউব ভিডিও দেখে ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব – ইউটিউবে ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায়

ইউটিউবে ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় সম্পর্কে অনেকে জানতে চান প্রায় সময়েই।

বর্তমানে ভিডিও শেয়ারিং এবং টিউটোরিয়ালে কিছু শেখার জন্য  ইউটিউব হচ্ছে অন্যতম জনপ্রিয় মাধ্যম। 

প্রতিনিয়ত লক্ষ লক্ষ মানুষ নানা ভাষায় নানা ধরণের টিউটোরিয়াল ভিডিও আপলোড করছে ইউটিউবে যা দেখে এখে শিখতে পারেন ডিজিটাল মার্কেটিং এর মতো  গুরুত্বপূর্ণ জনপ্রিয় কাজ।

ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়েও প্রচুর পরিমানে ইউটিউবে টিউটোরিয়াল আপলোড করা আছে এবং নিত্য নতুন আপলোড করা হচ্ছে।

এগুলো দেখার মাধ্যমে খুব সহজেই ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারবেন আপনিও।

বলে রাখা ভালো সম্পূর্ণ ফ্রিতে বলে মনে করবেন না যে এগুলো শিখে লাভ নাই। পেইড ভার্সনের থেকেও ভালো বুঝিয়ে থাকে অনেক ইউটিউব ভিডিও টিউটোরিয়ালে। 

এর জন্য আপনি ইউটিউবের সার্চ অপশনে গিয়ে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পূর্ণ টিউটোরিয়াল বা ইংরেজিতে লিখেও সার্চ করতে পারেন।

ইউটিউব সার্চ করতেই আপনি হাজার হাজার ভিডিও টিউটোরিয়াল পাবেন।

এর থেকে প্রথম দিকের মান সম্মত কয়েক থেকে আপনার পছন্দের শিক্ষকের কাছ থেকে শিখে নিতে পারেন ডিজিটাল মার্কেটিং। 

সরাসরি গুগল থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব ?  

 বিশ্বের সব চেয়ে বৃহৎ সার্চ ইঞ্জিন গুগল থেকে ডিজিটাল গ্যারেজ নামে গুগলের একটা অনলাইন কোর্স একাডেমি করার ব্যবস্থা হয়েছে।

গুগলের মাধ্যমে আপনি চাইলেই সেখান থেকেও ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স শিখতে পারবেন একদম ফ্রিতে এবং খুব সহজে। 

সব থেকে ইন্টারেস্ট এবং মজার ব্যাপার হল আপনি গুগল ডিজিটাল গ্যারেজ থেকে কোর্স করলে কোর্স শেষে আপনাকে একটি সার্টিফিকেট প্রদান করা হবে।

গুগল থেকে পাওয়া সার্টিফিকেট আপনি অনলাইনে কাজের বেলায় এবং বিভিন্ন জায়গায় অনেক কাজে লাগাতে পারবেন।

এখান থেকে কোর্স করতে হলে আপনাকে নিচের লিঙ্কে গিয়ে আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্ট দিয়ে প্রথমে সাইন আপ করতে হবে।

তারপরে আপনি কয়েকটি কোর্স করতে পারবেন। গুগল থেকে ফ্রি কোর্স করতে এখানে ক্লিক করুনঃ Fundamentals of digital marketing.

আরও পড়ুনঃ

বাংলাদেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী কে ছিলেন?

বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি কে ছিলেন?

ফ্রি কোর্স করে ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব ? 

অনলাইনে ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার ফ্রি কোর্স রয়েছে Udemy, Coursera, Udacity, Coursera, Skillshare, edX  সহ আর বেশ কিছু অনলাইনে প্লাটফরমের।

যেখান থেকে আপনি খুব সহজেই ফ্রীতে ডিজিটাল মার্কেটিং সহ আর নানা ধরণের স্কিল শিখতে পারেন খুব সহজে।

এই সকল সাইটে সবসময় ফ্রীতে কোর্স করার সুযোগ থাকে বিষয়টা এমন না। তাই আপনাকে এই সকল সাইট নিয়মিত ভিসিট করে এদের সম্পর্কে খেয়াল রাখতে হবে।

এসব প্লাট ফরম কখন ফ্রীতে কোর্স করার সুযোগ দিচ্ছে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

প্রাতিষ্ঠানিক ভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব?

উপরে যে সকল সাইটের কথা আপনাদেরকে জানালাম এর সব সাইটেই সবসময় আপনি পেইড কোর্স পাবেন।

তবে ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার জন্য আমি পেইড কোর্সকে সাজেসট করি না। 

প্রশ্নোত্তর সাইটের মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে কিভাবে শিখব জানব ? 

ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে খুঁটিনাটি শেখার জন্য প্রশ্ন এবং উত্তর সাইট হতে পারে আপনার অন্যতম একটি উপায় বা মাধ্যম।

বর্তমানে অনলাইনে বেশ কিছু রিসোর্সফুল প্রশ্ন-উত্তর সাইট রয়েছে যা ডিজিটাল মার্কেটিং সহ আর নানা বিষয়কে শিখতে সাহায্য করে থাকে।

এই সকল সাইটে আপনি আপনার প্রয়োজনীয় প্রয় সকল প্রশ্নের উত্তর খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে পেয়ে যাবেন।

দেশি এবং  বিদেশি কয়কটি প্রশ্ন এবং উত্তর সাইট এখানে দিয়ে দেওয়া হলোঃ 

  • Quora.com,
  • Answerbag.com,
  • YahooAnswers.com,
  • Blurtit.com,
  • WikiAnswers.com,
  • FunAdvice.com,
  • Askville.com,
  • Friendfeed.com,
  • AnybodyOutThere.com ,
  • FunAdvice.com ,
  • Askville.com ,
  • AskMeHelpDesk.com ,
  • AnswerBank.com ,
  • AskDeb.com ,
  • Able2Know.com
  • এছাড়াও অনেক প্রশ্ন উত্তর সাইট আছে।

বাংলাদেশেরও কিছু প্রশ্ন উত্তর সাইট আছে।

কোরা বাংলা , বিস্ময় ডট কম, আস্ক প্রশ্ন ডট কম, ই-নলেজ ডট কম, প্রোগ্রামাবাদ ডট কম, নির্বিক ডট কম, প্রশ্নোত্তর ডট কম, মায়া ডট কম, আন্সার বাংলা ডট কম ইত্যাদি। 

এছাড়াও অনলাইনে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে প্রচুর পরিমাণ বই পিডিএফ আকারে পাওয়া যায়।

বই পরেও ডিজিটাল মার্কেটিং শেখা যায়। এবং বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন জায়গায় ডিজিটাল মার্কেটিং বিষয়ে ওয়েবমিনার করা হয়।

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব বিষয়ে সতর্কতা

বাংলাদেশে অনেক অসাধু ব্যবসায়ী রয়েছেন যারা ডিজিটাল মার্কেটিং শিখাবেন নামে ব্যবসা গড়ে তুলেছেন।

তারা এ ব্যবসায় স্টুডেন্টদেরকে ভর্তি করার জন্য নানা প্রলোভন দিচ্ছেন এবং প্রলোভন দেখিয়ে তারা নিজে লাভবান হচ্ছেন।

অথচ ছাত্র-ছাত্রীরা এতে কোন লাভবান হচ্ছেন না, কেননা তারা সঠিক গাইডলাইন সম্পর্কে নিজেরাই জানেনা এবং লোকেদের ডিজিটাল মার্কেটিং নাম করে তারা শুধু টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন।

দেখাচ্ছেন ডিজিটাল মার্কেটিং ফেসবুকে, ইউটিউবে এভাবে করে। তাদের বাস্তবিক অর্থে কোন মার্কেটপ্লেসে কাজ করার কোনো অভিজ্ঞতা নেই।

যখনই আপনি কোন মার্কেটপ্লেসে কাজ না করা ও অনভিজ্ঞ ব্যক্তির কাছে নিজে শিখতে যাবেন তখন আপনি প্রতারণার শিকার হবেন।

তাই আপনার উচিত এমন কারো কাছে শিক্ষা নেওয়া যে মার্কেটপ্লেসের কাজের অভিজ্ঞতা আছে এখনো মার্কেটপ্লেসে কাজ করছে।

এমন অনেকে আছেন যারা ৩-৫ বছর আগে কাজ করেছেন এখনো করে না।

তাই সতর্ক থাকুন এবং চেষ্টা করুন নিজের অনলাইনে বিভিন্ন প্ল্যাটফর্মগুলোতে ব্যাবহার করে শিখতে।

নিজেকে ইংরেজিতে দক্ষ হতে চাইলে ইংরেজি ভিডিও গুলো বেশি বেশি দেখুন আপনার সাথে আপনি সঠিক পন্থা অবলম্বন করে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারবেন।

কেননা আমাদের দেশে ডিজিটাল মার্কেটিং নামে প্রতারণার গল্প অনেক রয়েছে। আপনি ইউটিউব খুঁজলেই সকল বিষয় সম্পর্কে জানতে পারবেন।

তাই কিভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং বিষয়ে নিজের মূল্যবান সময় নষ্ট করে আপনি রিচার্জ করবেন, চেষ্টা করবেন সঠিক পথ অবলম্বন করার।

তবেই আপনি সফল হবেন বলে আমি বিশ্বাস করি এবং আমি চাই একজন ডিজিটাল মার্কেটিং হিসেবে আপনি আপনার জীবনের সফলতা নিয়ে আসুন আপনার ভবিষ্যৎ কামনা করছি।  

ডিজিটাল মার্কেটিং গাইডলাইন FQAS

ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব?

বর্তমানে ঘরে বসে নিজে নিজেই ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারেন। ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার জন্য আপনি অনলাইনে বিভিন্ন ব্লগ, ইউটিউব চ্যানেল ও ফোরাম গুলি রেগুলার ভিজিট করতে পারেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং বলতে কি বুঝায়?

অনলাইনে কোন পণ্য বা সেবার প্রচার-প্রচারণা কি ডিজিটাল মার্কেটিং বলা হয়ে থাকে।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর ভবিষ্যৎ কি?

যতই দিন যাচ্ছে ডিজিটাল মার্কেটের চাহিদা বাড়ছে। করোনাকালীন সময়ে ডিজিটাল মার্কেটারের চাহিদা পূর্বের যেকোনো সময়ের তুলনায় বৃদ্ধি পেয়েছে কেননা এখন সকলেই নিজেদের ব্যবসাকে অনলাইন করতে চাচ্ছেন এবং অনলাইন থেকে টাকা আয় সম্পর্কে সকলেই জানতে চাচ্ছেন যার মধ্যে ডিজিটাল মার্কেটিং এটি অন্যতম পেশা হতে পারে।

ডিজিটাল মার্কেটিং কেন করবেন?

আপনি যদি অনলাইনে কোন ব্যবসা পরিচালনা করতে চান তবে অবশ্যই আপনাকে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে জ্ঞান থাকতে হবে। এছাড়াও আপনি যদি অনলাইন থেকে টাকা আয় করে অনলাইনে নিজের ক্যারিয়ার গড়তে চান তবে ডিজিটাল মার্কেটিং বর্তমান সময়ে হতে পারে আপনার প্রথম পছন্দ।

ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে?

বন্ধুরা ডিজিটাল মার্কেটিং এর অনেকগুলো সেক্টর রয়েছে। ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে খুব বেশি সময় লাগে না, কেননা এগুলো কিছু টেকনিক্যাল কাজের অন্তর্গত। সঠিক গাইডলাইন মেনে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে থাকলে এক মাসের মধ্যেই আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং এর ছোটখাটো কাজ গুলি পেতে পারেন বলে আমরা বিশ্বাস করি।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ কি?

মুলত ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ হচ্ছে অন্যের পণ্য বা সেবা ইন্টারনেটের বিভিন্ন প্ল্যাটফর্মগুলোতে প্রচার-প্রচারণা করা, যাতে সে ক্লায়েন্ট বাবা আর খুঁজে পায় যারা তার পণ্যগুলো ক্রয় করবে এবং সেখান থেকে ব্যবসায়ী টাকা কামাবে মূলত ব্যবসার উদ্দেশ্যে ডিজিটাল মার্কেটিং করা হয়ে থাকে।

ডিজিটাল মার্কেটিং এ আয় কেমন? ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার

সঠিক নিয়মে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখে সঠিকভাবে এলিমেন্ট করতে পারলে ডিজিটাল মার্কেটিং থেকে আয় করা সম্ভব।

শিক্ষানিবেশ পর্যায়ে একজন ডিজিটাল মার্কেটিং প্রতি মাসে 30 থেকে 50 হাজার টাকা পর্যন্ত আয় করতে পারেন।

তবে যখন পুরাপুরি ডিজিটাল মার্কেটের টেকনিকগুলো সিখে যান তখন মাসে 1 লক্ষ টাকা পর্যন্ত আয় করতে পারেন।

মূলত বিষয়টি নির্ভর করছে একজন মার্কেটের কতটা সময় দিতে পারেন।

আরও পড়ুনঃ

ঘরে বসে ভিসা চেক করার নিয়ম । Online Visa Check BD Bangladesh

অনলাইনে বিদ্যুৎ বিল চেক | বিকাশে বিদ্যুৎ বিল চেক করার নিয়ম

সব সিমের নাম্বার দেখার কোড | BD All SIM number check code

আজকের শেষ কথা 

এতক্ষণ এই দীর্ঘ পোস্টটি যারা পড়ছেন নিশ্চয়ই সবাই ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে এতক্ষণে সম্পূর্ণ বিষয় বুঝতে পারছেন।

এটাও নিশ্চয়ই বুঝতে পারছেন যে, ডিজিটাল মার্কেটিং কাজ খুব একটা কঠিন কিছু না।

শুধু মাত্র ধৈর্য, নিজস্ব শ্রম এবং কাজ করার মানসিকতা প্রয়োজন।

তবে শুধু মাত্র আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং করার জন্য বাকি সব কাজ ছেরে দিবেন কি না তা আপনার ব্যপার।

শুধু এটুকু বলব যে, ডিজিটাল মার্কেটিং করে খুব বড় অংকের ইনকাম করতে অনেক সময়ের দরকার।

এখন সিদ্ধান্ত আপনার, আপনি কি করবেন। 

আজকের পোস্ট থেকে জানাতে চেষ্টা করেছি ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব কি কেন প্রয়োজন এর সবকিছু।

আশা করছি পোস্টটি আপনাদের জন্য অনেক হেল্পফুল হবে। ধন্যবাদ সবাইকে। 

নিত্য নতুন পোস্ট পেতে প্রতিদিন আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করুন এবং চোখ রাখুন আমাদের ফেসবুক পেজে।

Leave a Comment

2 × 2 =